নবীকে নিয়ে কটুক্তি, যশোর জেলা ইমাম পরিষদের বিক্ষোভ

ফাতেহ ডেস্ক:

ফেসবুকে ইসলামের নবী হযরত মোহাম্মদ সা. কে নিয়ে আপত্তিকর ও কটুক্তিপূর্ণ মন্তব্য করায় মিঠুন কুমার মন্ডলের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করেছে যশোর জেলা ইমাম পরিষদ। আজ মঙ্গলবার বিকেলে যশোরের দড়াটানার ভৈরব চত্বরে এ বিক্ষোভ সমাবেশ এবং মিছিলের আয়োজন করা হয়।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ‘নবীজি সা.কে কটুক্তিকারীর শাস্তি ফাঁসি নির্ধারণ করতে হবে। গ্রেফতার ইত্যাদির মাধ্যমে তাদেরকে কেবল নিরাপত্তা দেওয়া হয়। কিছুদিন পরে ছেড়ে দেওয়া হয়! তাই এজাতীয় কুলাঙ্গারদের একমাত্র শাস্তি হলো ফাঁসি।’

সমাবেশে নবীজি সা.কে কটুক্তিকারীর শাস্তি হিসেবে অবিলম্বে ফাঁসির আইন জারি করার জোর দাবী জানান সব বক্তারা।

এদিকে, হযরত মোহাম্মদ সা. কে নিয়ে আপত্তিকর ও কটুক্তিপূর্ণ মন্তব্য করায় যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী মিঠুন কুমার মন্ডলকে সাতক্ষীরার দেবহাটা থেকে আটক করেছে করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। সোমবার ভোর রাতে দেবহাটা উপজেলার নারিকেলী এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

সাতক্ষীরা গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইয়াছিন আলম চৌধুরী জানান, মিঠুন মন্ডল যশোর বিজ্ঞান প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে লেখাপড়া করে। বর্তমানে গ্রামের বাড়ি দেবহাটায় রয়েছে। ফেসবুকে মহানবী হযরত মোহাম্মদ সা. কে নিয়ে আপত্তিকর ও কটুক্তি করে মন্তব্য করায় তাকে আটক করা হয়েছে। তিনি আরো জানান, তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

উল্লেখ্য, দেশের চলমান ধর্ষণ পরিস্থিতি নিয়ে বিভিন্ন ব্যক্তি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রতিবাদ করছেন। এমনই এক ব্যক্তির প্রতিবাদ কমেন্টে মিঠুন কুমার তার ফেসবুক আইডি থেকে মহানবী হযরত মোহাম্মদ সা. কে নিয়ে কটুক্তি করেন। এটির স্কিনশর্ট ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে ঘটনাটি প্রশাসনের দৃষ্টিতে আসলে তাকে আটক করা হয়।

বিজ্ঞাপন