নির্বাচনে কারচুপি: কিরগিজস্তানে এবার প্রেসিডেন্টের পদত্যাগ

ফাতেহ ডেস্ক:

নির্বাচনে কারচুপি ও এর বিরুদ্ধে বিক্ষোভকে ঘিরে সৃষ্ট রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে পদত্যাগ করেছেন কিরগিজস্তানের প্রেসিডেন্ট সুরোনবাই জিনবেকভ।

এর আগে পদত্যাগ করেন প্রধানমন্ত্রী কুবাতবেক বরোনোভ, যিনি জিনবেকভের ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত ছিলেন।

আলজাজিরা জানায়, বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে পদত্যাগের ঘোষণা দেন কিরগিজ প্রেসিডেন্ট।

নবনির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী সাদির জাপারভকে তিনি প্রত্যাখ্যান করার পরই এমন ঘোষণা আসে। পার্লামেন্টের সদস্যদের ভোটে প্রধানমন্ত্রী হন জাপারভ। আন্দোলনের সময় জেল থেকে তাকে মুক্ত করে এনেছিল বিক্ষোভকারীরা।

বিবৃতিতে জিনবেকভ বলেন, ‘আমি ক্ষমতা আটকে রাখছি না। কিরগিজস্তানের মানুষের ওপর রক্তপাত ও গুলি চালানোর অনুমতি দিয়েছিলেন, এমন প্রেসিডেন্ট হিসেবে আমি ইতিহাসে নাম লেখাতে চাই না। আমি পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

তিনি বলেন, ‘আমার জন্য কিরগিজস্তানের শান্তি, দেশের সার্বভৌমত্ব এবং জনগণের ঐক্য, সমাজের শান্তি সবকিছুর উর্ধ্বে।’

এ মাসের শুরুতে নির্বাচনে চুরি ও ভোট বেচাকেনার অভিযোগে বিক্ষোভ শুরু করে কিরগিজস্তানের জনগণ। তারা পার্লামেন্ট ভবনে ঢুকে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। আন্দোলনে মন্ত্রিপরিষদ, বেশ কয়েকজন গভর্নর এবং মেয়রকে পদত্যাগে বাধ্য করে বিক্ষোভকারীরা।

কারাগারে ১১ বছরের সাজায় থাকা জাপারোভ ও সাবেক প্রেসিডেন্ট আলমাসবেক আতামবায়েভকে মুক্ত করে আনেন তারা। বিক্ষোভের মুখে কিরগিজস্তানের পার্লামেন্ট নির্বাচনের ফল বাতিল করা হয়।

এ বিক্ষোভে নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষে এক হাজার ২০০ জনের বেশি মানুষ আহত হন এবং নিহত হন একজন।

বিজ্ঞাপন