বিনামূল্যে ডেঙ্গু পরীক্ষার সিদ্ধান্ত গ্রহণ স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের

ফাতেহ ডেস্ক

দেশের সকল সরকারি হাসপাতালে রোগীদের বিনামূল্যে ডেঙ্গু পরীক্ষার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়। যার ফলে রোগীরা এখন থেকে কোনো ধরনের ইউজার ফি ছাড়াই বিনামূল্যে ডেঙ্গু পরীক্ষার সুযোগ পাবেন। তবে চাইলেই ডেঙ্গু পরীক্ষা করার সুযোগ পাওয়া যাবে না। কারণ কোন ধরনের রোগীকে ডেঙ্গু পরীক্ষা করা হবে সে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবেন সংশ্লিষ্ট হাসপাতালের চিকিৎসক।

গতকাল বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সরকারি হাসপাতালে সব ধরনের পরীক্ষা-নিরীক্ষা এমনিতেই অপেক্ষাকৃত কম মূল্যে (ইউজার ফি) করা হয়ে থাকে। বর্তমানে ডেঙ্গু জ্বরের প্রকোপ বৃদ্ধি পাওয়ায় দ্রুত রোগী শনাক্ত ও বিশেষজ্ঞদের তৈরি গাইডলাইন অনুযায়ী চিকিৎসা প্রদানের লক্ষ্যে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে পরীক্ষাটি করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে।

তিনি জানান, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কাছে ৪০ হাজারেরও বেশি ডেঙ্গু পরীক্ষার কিটস রয়েছে। এছাড়া বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কাছে আরও এক লাখ ডেঙ্গু পরীক্ষার কিটস সহায়তা প্রদানের অনুরোধ জানানো হয়েছে। এছাড়া বেসরকারি হাসপাতালগুলোকেও ডেঙ্গুসহ অন্যান্য পরীক্ষা-নিরীক্ষার ইউজার ফি সহনীয় মাত্রার রাখার জন্য অনুরোধ জানানো হয়েছে।

প্রসঙ্গত, দেশে ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্তের সংখ্যা এরই মধ্যে সাড়ে তিন লাখ ছাড়িয়ে গেছে। আগামী মাসে বা ভরা মৌসুমে পরিস্থিতির আরও অবনতির আশঙ্কা রয়েছে। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগনিয়ন্ত্রণ শাখার তথ্য বিশ্লেষণ করে আক্রান্তের এই অনুমিত সংখ্যা পাওয়া গেছে। পূর্বের রেকর্ড ভেঙে রাজধানীর হাসপাতালগুলোতে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা দিন দিন বেড়েই চলছে। চলতি বছর এরই মধ্যে রাজধানীতে ডেঙ্গু নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৪ হাজার ২৪৮ জন। যার মধ্যে ১৪ জুলাই পর্যন্ত ২ হাজার ১৬৪ জন। ফলে চাপ সামলাতে হিমশিম খাচ্ছেন চিকিৎসকরা।