মিল্কভিটা-প্রাণ-আড়ংসহ ৭ কোম্পানির দুধে ক্ষতিকর অ্যান্টিবায়োটিক

ফাতেহ ডেস্ক

মিল্কভিটা, আড়ং, ফার্মফ্রেশ, প্রাণ, ইগলু, ইগলু চকলেট ও ইগলু ম্যাংগো পাস্তুরিত দুধে অ্যান্টিবায়োটিক পাওয়া গেছে। মঙ্গলবার সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসি বিভাগ থেকে প্রকাশিত এক গবেষণা প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

দুধে অ্যান্টিবায়োটিকের উপস্থিতি উদ্বেগের বিষয় বলে জানিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসি বিভাগের গবেষকরা। ফুড সেইফটি এনালাইসিস এর মূখ্য গবেষক অধ্যাপক আ ব ম ফারুক জানান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসি বিভাগ বাজার থেকে দুধসহ ৮ টি ভোগ্যপণ্যের নমুনা সংগ্রহ কোরে গবেষণা করে।

এই পরীক্ষায় আড়ং, বাঘাবাড়ি, প্রাণ, মিল্কভিটা, মিল্কম্যান, সমীর ও টিনে বিক্রি হওয়া আট ধরণের ঘি মানোত্তীর্ণ হয়নি। বাজারের ১১ ধরণের ফ্রুট ড্রিংকস এর মধ্যে ৭টি মানোত্তীর্ণ হতে পারেনি। একই অবস্থা গুড়া মশলায়।

সংগৃহীত ৮ টি নমুনার মধ্যে ৬টি মানোত্তীর্ণে ব্যর্থ হয়েছে। এছাড়াও বাজার থেকে সংগৃহীত রূপচাঁদা, ফ্রেশ, পুষ্টি, তীর, এসিআই পিওর ভিওলা, মুসকান ও মিজান তেলের মধ্যে এসিড ভ্যালু পরীক্ষায় ২ টি মানোত্তীর্ণ হয়নি বলে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।