দেশে একদিনে রেকর্ড ২৪ মৃত্যু, আক্রান্ত ১৬৯৪

ফাতেহ ডেস্ক

চব্বিশ ঘণ্টায় দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে রেকর্ড ২৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এই সময়ে প্রাণঘাতী এই ভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়েছে আরও ১,৬৯৪ জনের শরীরে।

বাংলাদেশে গত ৮ মার্চ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত প্রথম রোগীর খোঁজ মেলার পর মোট আক্রান্ত দাঁড়িয়েছে ৩০ হাজার ২০৫ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৪৩২ জনের। চব্বিশ ঘণ্টায় ৫৮৮ জনসহ মোট সুস্থ হয়েছেন ৬ হাজার ১৯০ জন।

কভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়ে এর আগে একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু ছিল ২২ জন, ২১ মে।

দেশে করোনায় শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ২০.৪৯ শতাংশ; মৃত্যুর হার ১.৪৩ শতাংশ।

দেশের করোনাভাইরাস পরিস্থিতি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত অনলাইন বুলেটিনে শুক্রবার দুপুরে এসব হালনাগাদ তথ্য তুলে ধরেন অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

তিনি জানান, চব্বিশ ঘণ্টায় মৃত্যুবরণ করা ২৫ জনের ১৩ জনই ঢাকা বিভাগের। চট্টগ্রাম বিভাগের নয়জন, বরিশালে একজন এবং ময়মনসিংহ বিভাগে একজন। হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেছেন ১৫ জন, বাড়িতে আটজন এবং মৃত অবস্থায় হাসপাতালে এসেছেন একজন।

তাদের বয়স ২১-৩০ বছরের মধ্যে পাঁচজন, ৩১-৪০ বছরের মধ্যে তিনজন, ৪১-৫০ বছরের মধ্যে দুজন, ৫১-৬০ বছরের মধ্যে পাঁচজন, ৬১-৭০ বছরের মধ্যে ছয়জন, ৭১-৮০ বছরের মধ্যে দুজন এবং ৮১-৯০ বছরের মধ্যে একজন।

বুলেটিনে বলা হয়, ২৪ ঘণ্টায় দেশের ৪৭টি ল্যাবে ৯ হাজার ৯৯৩টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। পরীক্ষা করা হয় ৯ হাজার ৭২৭টি নমুনা।

চব্বিশ ঘণ্টায় আইসোলেশনে আনা হয়েছে ২২৫ জনকে; ছাড় পেয়েছেন ৬২ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ৪ হাজার ৬০ জন।

একদিনে কোয়ারেন্টাইনে আনা হয়েছে ২ হাজার ৫০৭ জনকে; ছাড় পেয়েছেন ২ হাজার ১৯ জন। বর্তমানে কোয়ারেন্টাইনে আছেন ৫৪ হাজার ৯২৩ জন।